বিয়েবাড়ির রান্নারেসিপিলাঞ্চস্পেশাল খাবার

খাসির রেজালা

খাসির রেজালার রেসিপি

( কিশোয়ার চৌধুরীর রেসিপি )

রান্নার জাদুতে মাস্টারশেফ অস্ট্রেলিয়ার বিচারকদের তাক লাগিয়েছেন কিশোয়ার চৌধুরী। বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত এই রন্ধনশিল্পী ভিনদেশি প্রতিযোগিতায় হয়েছেন দ্বিতীয় রানারআপ। মাস্টারশেফ অস্ট্রেলিয়ার ৩০তম পর্বে খাসির রেজালা রেঁধেছিলেন কিশোয়ার। এবার ঈদের উৎসবে তাঁর রেসিপি ‘ট্রাই’ করে দেখবেন নাকি?

খাসির রেজালা

উপকরণ

মাংস ম্যারিনেটের জন্য: ১ কেজি খাসির মাংস, ১ কাপ গ্রিক দই বা টক দই, ২ টেবিল চামচ পাপরিকা, আধা টেবিল চামচ লবণ।

ম্যারিনেটের প্রণালি: ভালো করে কাটা খাসির মাংস থেকে প্রথমে বাড়তি চর্বি পরিষ্কার করে নিতে হবে। এরপর ম্যারিনেটের উপকরণগুলো মাখিয়ে ২০ মিনিট রেখে দিতে হবে।

রেজালা স্টকের জন্য: ৩৫০ গ্রাম ঘি, ৩ টেবিল চামচ তিসির তেল, ৫টি তেজপাতা, ২ টুকরা দারুচিনি, ১৫টি গোলমরিচ, ১০টি এলাচি, ৫টি লবঙ্গ, ১টি বড় পেঁয়াজ (পাতলা করে কাটা), ম্যারিনেট করা খাসির মাংস, ১ টেবিল চামচ গুঁড়া মরিচ, লবণ পরিমাণমতো।

রেজালা স্টক তৈরির প্রণালি:

একটি বড় সসপ্যানে প্রথমে তেল নিয়ে অল্প আঁচে কিছুক্ষণ রান্না করুন। এবার ৫ টেবিল চামচ ঘি দিন। সব মসলা ঢেলে ঘ্রাণ ছড়ানোর আগপর্যন্ত নাড়তে থাকুন। পেঁয়াজ দিন। পেঁয়াজের রং লাল হয়ে এলে ম্যারিনেট করা খাসির মাংস ঢেলে দিন। মাংসের রং বাদামি হওয়া পর্যন্ত কষাতে থাকুন। এরপর ঢাকনা দিয়ে ঢেকে দিন।

৭-১০ মিনিট অপেক্ষা করুন। পাপরিকা যোগ করে ১ মিনিট নাড়াচাড়া করুন। এবার সবকিছু সসপ্যান থেকে প্রেশার কুকারে ঢেলে নিন। লবণ ও পানি দিয়ে প্রেশার কুকারে রাখুন ৩০ মিনিট।

কিশোয়ার চৌধুরীর খাসির রেজালা

সবশেষ পর্যায় রেজালার জন্য উপকরণ:

৫০ গ্রাম আদাকুচি, ১টি রসুন, ঘি, ৫টি লবঙ্গ, ১০টি এলাচি, ৫টি তেজপাতা, ২ টুকরা দারুচিনি, ১টি পেঁয়াজ, ১ টেবিল চামচ পাপরিকা, আধা টেবিল চামচ মরিচগুঁড়া, আধা টেবিল চামচ জিরাগুঁড়া, আধা টেবিল চামচ ধনেগুঁড়া, আধা টেবিল চামচ আদাবাটা, পরিমাণমতো আদা পাতলা করে কাটা, সিকি কাপ দই, ১ টেবিল চামচ চিনি ও লবণ, ৪-৬টি মরিচ, রেজালা স্টক ও ম্যারিনেট করা খাসির মাংস এবং ১ টেবিল চামচ গোলাপজল।

প্রণালি

প্রেশার কুকারে মাংস যখন রান্না হচ্ছে, এই ফাঁকে রেজালার ঝোলটা তৈরি করে নিতে পারেন। প্রথমে আদাকুচি ও রসুন ভালো করে বেটে নিন।

একটা বড় ফ্রাইপ্যানে আধা কাপ ঘি মাঝারি আঁচে গরম করুন। গরমমসলা ঢেলে সুবাস ছড়ানো পর্যন্ত নাড়তে থাকুন। পেঁয়াজ-রসুনবাটা দিয়ে ৮-১০ মিনিট নাড়ুন। এরপর গুঁড়া মসলা আর পাতলা করে কাটা আদা দিয়ে নাড়তে থাকুন। দই, চিনি ও সামান্য পানি যোগ করে নিন, যেন মসলাগুলো পুড়ে না যায়। আস্ত কিংবা ফালি করে কাটা মরিচ দিয়ে দিতে পারেন।

এতক্ষণে প্রেশার কুকারের রান্নাটা হয়ে যাবে। প্রেশার কুকারের উপকরণগুলো ফ্রাইপ্যানে ঢেলে নিন। ঝোলটা ঘন হয়ে আসা পর্যন্ত কষাতে থাকুন। সবশেষে পরিমাণমতো গোলাপজল, চিনি ও লবণ দিন। রেজালার ওপরে ধনেপাতা দিয়ে পরোটাযসহ পরিবেশন করুন।

সূত্রঃ প্রথম আলো

আরো পড়ুনঃ

মাংস সংরক্ষণ পদ্ধতি

ঈদের খুশিতে হয়ে যাক মাটন রোস্ট

ঈদের অতিথি আপ্যায়নে কাশ্মিরী পোলাও ও রায়তা

ম্যাংগো কাস্টার্ড

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
error: Content is protected !!

Adblock Detected

Please turn off your Adblocker.